নাগরপুর জমিদার বাড়ি দখল মুক্ত করা হয়েছে

দেশজুড়ে
নাগরপুর, টাঙ্গাইল প্রতিনিধি।
১১:৪৬:২৫এএম, ৩ ডিসেম্বর, ২০২০
ছবি- সংগৃহীত।

বেদখলে থাকা নাগরপুরের জমিদার বাড়ি দীর্ঘদিন পড়ে প্রত্নতত্ত্ব অধিদফতরের একটি বিশেষ টিমের নেতৃত্বে দখলমুক্ত করা হয়েছে। গত সোমবার দুপুরের পর থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত উদ্বারকাজ চালিয়ে অবশেষে দখল মুক্ত করা হয়।

 নাগরপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) তারিন মসরুর এবং টাঙ্গাইল জেলা প্রশাসন কার্যালয়ের সিনিয়র কমিশনার উপমা ফারিসার নেতৃত্বে এ অভিযান চালানো হয়। অভিযানে নাগরপুর মহিলা কলেজের আট ও নাগরপুর শহীদ সামছুল হক বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের দখলে থাকা একটি ভবন উদ্ধার করা হয়েছে।

দীর্ঘদিন  দখলে থাকা ভবনগুলোতে স্কুল-কলেজের শিক্ষকরা পরিবারসহ বসবাস করে আসছিল। এর আগে প্রত্নতত্ত্ব অধিদফতরের পরিচালক ভবনগুলো পরিদর্শন করেন এবং জনজীবনের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ হওয়ায় ৫ নভেম্বর জেলা প্রশাসনকে বিষয়টি অবহিত করেন।

বিষয়টি জেলা প্রশাসনের নির্দেশে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সিফাত-ই-জাহান নাগরপুর মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ ও শহীদ সামছুল হক বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে ভবন গুলো খালি করে দেয়ার জন্য নোটিশ দেন। নাগরপুর মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ ও শহীদ সামছুল হক বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় প্রধান শিক্ষক জেলা প্রশাসকের কাছে সময় চান। পরবর্তীতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ১৬ নভেম্বর পুনরায় নোটিশ দেন।

Tangail-pic-1.jpg

গত সোমবার টাঙ্গাইল জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সিনিয়র কমিশনার, নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট উপমা ফারিসা, নাগরপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) তারিন মসরুর ও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আনিসুর রহমান আনিস ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে যান।

এ সময় দখলে থাকা ভবনগুলো দখলমুক্ত করে সিলগালা করা হয়। জানমালের নিরাপত্তায় সিলগালাকৃত জরাজীর্ণ ভবনগুলোতে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জনসাধারণকে অনুপ্রবেশ না করার জন্য সর্তককরন নোটিশ দেয়া হয়।

উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) তারিন মসরুর বলেন, দুর্ঘটনা এড়াতে জনস্বার্থে জরাজীর্ণ ও ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে থাকা লোকদের ভবন ছেড়ে দেয়ার জন্য একাধিকবার তাগিদ দেয়া হয়। অবশেষে কর্তৃপক্ষের নির্দেশে অভিযান চালিয়ে ভবন গুলো দখল মুক্ত করা হয়।